কাতারের ফুটবল বিশ্বকাপের বাকি আর এক মাসও নেই। সময়ের হি’সাবে বাকি ২৯ দিন। প্রতিটি দলই শেষ মুহূ’র্তের প্র’স্তুতিতে ব্য’স্ত থাকাটাই স্বাভাবিক। সেখানে কিনা নিজেরাই নিজেদের পেছনে লেগেছে ই’রানের ফুটবলার এবং ক্রী’ড়া ব্যক্তিত্বরা।

 

নিজেরাই ফুটবলের সর্বোচ্চ নি’য়ন্ত্রক সংস্থা ফিফার কাছে চিঠি পাঠিয়ে বিশ্বকাপে ইরানকে নি’ষি’দ্ধ করতে আবেদন করেছে। কেবল ইরান জাতীয় দলকে বিশ্বকাপে নি’ষেধা’জ্ঞা নয় একই সঙ্গে দেশটির ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের সদস্য পদ স্থ’গিত করতেও ফিফার কাছে আবেদন করেছে ক্রীড়া সংশ্লিষ্ট সংস্থাটি।

 

স্পেনের আইনজীবী ফার্ম রুইজ-হুয়ের্তা অ্যান্ড ক্রেসপোর মাধ্যমে ফিফা বরাবর চি’ঠি পাঠিয়েছে তারা। মূলত, ফুটবল ম্যাচ চলাকালে স্টেডিয়ামে না’রীদের প্রবেশে নি’ষেধা’জ্ঞা দিয়েছে ইরান সরকার। তারই প্রে’ক্ষিতে এমন আ’ত্মহু’তিমূলক চিঠি ফিফা বরাবর প্রেরণ করেছে।

 

বিবিসিতে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে থেকে জানা যায়, ‘আইনি প্রতি’ষ্ঠান রুইজ-হুয়ের্তা অ্যান্ড ক্রে’সপোর মাধ্যমে ইরানের ফুটবল এবং অন্যান্য খেলাধুলার স’ঙ্গে জ’ড়িত ব্যক্তিত্বরা মিলে ফিফা এবং তার সভাপতি জিয়ান্নি ইনফান্তিনোর কাছে আনুষ্ঠানিকভাবে একটি চিঠি পাঠিয়েছেন।

 

সেখানে ইরানের ফুটবল ফেডারেশনকে তাৎক্ষণিকভাবে নি’ষি’দ্ধ করার দাবি করা হয় এবং তা ২০ নভেম্বর থেকে শুরু হতে যাওয়া বিশ্বকাপ থেকেই কার্যকরের অনুরো’ধ করা হয়েছে।’

 

নিজেদের নি’ষি’দ্ধ করতে ইরানের যে সংস্থা’টি চিঠি দিয়েছে, তারা নিজেদের দা’বিতে জানিয়েছে, ‘যদি নারীদের স্টেডিয়ামে প্রবেশের অনুমতি না দেওয়া হয় এবং ইরানের ফুটবল ফেডারেশন কেবলমাত্র সরকারী নি’র্দেশ অনুসরণ এবং প্রয়োগ করে। তবে সেই সংস্থাকে স্বাধীন দা’বি করা যায় না।

 

এটা স্প’ষ্টতই ফিফার আইনের ল’ঙ্ঘন। ২০ নভেম্বর থেকে শুরু হতে যাওয়া কাতার বিশ্বকাপে ‘বি’ গ্রুপে রয়েছে এশিয়ার এই দলটি। যেখানে তাদের স’ঙ্গে গ্রুপে আরও রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র, ইংল্যান্ড এবং ওয়েলস।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *