বিশ্বকাপ ঘিরে স’মালো’চনা এখন যেন কাতার আর জার্মানির মধ্যে। বু’ন্দেসলিগায় এবার বিশ্বকাপ ব’য়ক’টের আহবা’নের বড়সড় শোডাউন হয়ে গেল। দুই গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে ব’য়ক’ট কাতার ২০২২ এবং এ সংক্রা’ন্ত ব্যানার প্ল্যাকার্ডে ছেয়ে যায় গ্যালারি। এদিকে, প্রিয় দলকে সম’র্থন করে বি’পাকে পড়েছেন ভারতের কেরালাবাসী।

 

নদীর ওপর থেকে মেসি ও নেইমারের কা’টআ’উট সরাতে আইনী নো’টিশ পেয়েছে চাতামাঙ্গালাম গ্রাম পঞ্চায়েত। বিশ্বকাপ এগিয়ে আসার স’ঙ্গে স’মালো’চনা কমতে শুরু করেছিল কাতারকে ঘিরে। এবার জার্মানির কাঠগড়ায় আয়ো’জকরা। অংশগ্রহণকারী দেশগুলোর প্রতি ফিফার আহবানের পরও যেন থা’মানো যাচ্ছে না জার্মানদের।

 

চারবারের চ্যা’ম্পিয়ন ডিমেনশ্যাফটরা বিশ্বকাপে ঠিকই খেলবে কিন্তু দেশের সম’র্থকরা মানবাধিকার ইস্যুতে সরব। হঠা’ৎ করে তাদের এই প্রতি’বাদ নাকি সম্প্র’তি দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর মন্ত’ব্যের জেরে কাতারে জার্মান রাষ্ট্রদূতকে ডেকে পাঠানোর পর ক্ষু’ব্ধ দেশটিরা নাগরিকরা সে প্র’শ্ন থেকেই যাচ্ছে। তবে শনিবার বুন্দে’সলিগার ম্যাচগুলোতে যা হয়েছে তা রীতিমতো বড় রকমের প্র’তিবা’দ।

 

হার্থা বার্লিন-বায়ার্ন মিউনিখ, বরুশিয়া ডর্টমুন্ড-বোখুম, জার্মান লিগের দুটি আকর্ষণীয় ম্যাচ ছিল এদিন। দুই ম্যাচেই গ্যালারি ছেয়ে গিয়েছিল ‘বয়’কট কাতার ২০২২’ ব্যানার আর প্ল্যাকা’র্ডে। সঙ্গে দেখা মিলেছে ৫ হাজার ৭৬০ মিনিট ফুটবলের জন্য ১৫ হাজার মানুষের মৃ’ত্যুর প্র’তিবা’দমূলক ব্যানার।

 

এদিকে প্রিয় দলকে সমর্থ’ন জানিয়েও স্ব’স্তিতে নেই ভারতের কেরালাবাসী। নদীর মাঝে মেসির বড় কা’টআ’উট, এরপর নেইমারের ছ’বি সেখানেই এবার বিপ’ত্তি। নদীর মাঝ থেকে এটি সরাতে এবার আই’নী নোটিশ পেয়েছে গ্রাম পঞ্চায়েত। পানি প্রবাহ বা’ধাগ্র’স্ত হওয়ার শ’ঙ্কা জানিয়ে চাতামাঙ্গালাম গ্রাম পঞ্চায়েত সভাপতি আব্দুল গফুরকে নো’টিশ পাঠিয়েছেন অ্যাডভোকেট শ্রী’জিত পেরুমানা।

 

এখনই সেই কা’টআ’উটগুলো অন্য কোথাও শোভা পাবে কি না সে সিদ্ধা’ন্ত দু’দলের সমর্থকদের। ভারতের কেরালারই আ’রেক সমর্থক আশিক সাবিল বানিয়েছেন মেসির বড় আকৃ’তির পোট্রেট। এ-থ্রি সাইজের কাগজের ওপর বিভিন্ন অংশ প্রি’ন্ট করে তা জো’ড়া দিয়ে তৈরি হয়েছে ১২ মিটার দের্ঘ্য আর ১০ মিটার প্রস্থের চিত্রকর্মটি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *