কুড়িয়ে পাওয়া ৫ লাখ টাকা ফেরত দিতে মাইকিং, নিজের টাকা দাবি করছেন ১৫ জন

রাস্তায় কুড়িয়ে পাওয়া ৫ লাখ টাকাই জীবন অতি’ষ্ঠ করে তুলেছে ঠাকুরগাঁওয়ের যুবক সৌরভের। সম্প্রতি রাস্তায় কু’ড়িয়ে পাওয়া পাঁচ লাখ টাকা ফেরত দিতে শহরজুড়ে মাই’কিং করেন সৌরভ। বিভিন্ন গণমাধ্যমে এ সংবাদ প্রচারে ঘটনাটি রীতিমতো ভাই’রাল হয়ে যায়। সাধারণ মানুষের ভালোবাসায় নায়ক বনে যান সৌরভ।

 

শুরুতে ব্যাগ ভর্তি টাকার কোনো মালিক খুঁ’জে পাওয়া যায়নি। কিন্তু কয়েকদিন পর একে একে টাকার মালিকানা দা’বি করতে থাকেন মোট ১৫টি পক্ষ। সৌরভ জানায় ভালো কিছু করতে গেলে এত বা’ধা কেন বুঝতেছি না। অনেকে আবার নে’গেটি’ভ কথাবা’র্তা বলছে।

 

জনকল্যাণের কথা চিন্তা করে একটি শুভ চিন্তা নিয়েই সঠিক পাওয়ানাদারের কাছে টাকাটা তুলে দিতে মাইকিং করেছি । এখন সেই উদ্যো’গই যেন জ্বা’লা হয়ে দাঁড়িয়েছে আমার জন্য। এক রিকশা চালক আমাকে বলছে আমি নাকি ৩০ লাখ টাকা কুড়িয়ে পেয়ে ৫ লাখ টাকার মাইকিং করেছি। এই গু’জব’টা কোথা থেকে উঠল?

 

নিজের টাকা দা’বি জানিয়ে ১৫ জন ফোন করেছেন। তবে কেউই সরাসরি উপ’স্থিত হতে চান না। বিকাশ অথবা ব্যাংকের মাধ্যমে টাকা পাঠাতে বলছেন। আমি তাদের সঠিক প্র’মাণ দিয়ে টাকা নিয়ে যেতে অনুরো’ধ করছি। কিন্তু কেউ এখন পর্যন্ত আসে নি। শেষ পর্যন্ত এই কুড়িয়ে পাওয়া টাকার কোনো প্র’কৃত মালিককে না পাওয়া গেলে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে তা একজন অ’ন্ধ কোরানের হাফেজের চোখের চিকিৎসার জন্য ব্যয় করতে চাই।

ঠাকুরগাঁওয়ের জেলা প্রশাসক মাহবুবুর রহমান বলেন, এরকম ক্ষে’ত্রে সরকারের সুনির্দিষ্ট কোনো নির্দেশনা নেই। তবে টাকাটা অন্য কোনো খাতে খরচ করতে কিছুটা সময় নেয়া উ’চিৎ বলে পরামর্শ দেন তিনি। সৌরভের নৈ’তিকতা ও স্বচ্ছতা এখনো সা’ধুবাদ জানাচ্ছেন এলাকাবাসী।

 

তারা মনে করেন, সঠিক প্রমা’ণ নিয়েই টাকার মালিকানা দা’বি করা উচিৎ। অকারণে তাকে বির’ক্ত না করার পরামর্শ দেন তারা। টাকাগুলো কোথাও দান করার পরও যদি প্রকৃ’ত মালিককে পাওয়া যায়, তিনিও নি’রাশ হবে না বলে আ’শ্বস্ত করেন সৌরভ।

এই ক্যাটাগরির আরও খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *