চলতি বছরের ২ সেপ্টেম্বর মু’ক্তি পেয়েছে রকিবুল আলম রকিব পরিচালিত সিনেমা ‘ভাইয়ারে’। আর এই ছবির কেন্দ্রীয় চ’রিত্রে অভিনয় করেছেন রাসেল মিয়া। মু’ক্তির পেথম দিনে চিত্রামহল সিনেমা হলে যান ছবিটির নায়ক রাসেল মিয়া। সেখানে গিয়ে আ’বেগপ্র’বন হয়ে যান তিনি।

 

সে সময় তিনি বলেন, আল্লাহর ক’সম, কোর’আন শরী’ফের উপর হাত রেখে বলি এটি একটি পা’পমু’ক্ত ছবি। এই ছবি করতে গিয়ে কোন অভিনেতা, পরিচালক কিংবা প্রযোজক কোন মে’য়ের হাত পর্যন্ত ধ’রে নাই। এই ছবিতে কোন পা’প নাই। অভিনেতার এই ব’ক্তব্যের পরেই শুরু হয় জোর স’মালো’চনা। অবশেষে বিষয়টি পরিষ্কার করেছেন রাসেল মিয়া। অ’নিচ্ছা’কৃত ভু’লের জন্য ক্ষ’মাও চেয়েছেন তিনি।

 

আজ মঙ্গলবার (৬ সেপ্টেম্বর) বিষয়টি নিয়ে রাসেল মিয়া তার ভেরি’ফায়েড ফেসবুক আই’ডিতে লিখেছেন, আসসালামু আলাইকুম। আমি রাসেল মিয়া বারবার বলছি সিনেমা পা’পমু’ক্ত, সিনেমা হালাল, সিনেমা করতে গিয়ে কারো হাত পর্যন্ত ধরিনি, এটা আমি বোঝাতে চাইনি।

 

আমি বোঝাতে চেয়েছি, ভাইয়ারে ছবিটি করতে গিয়ে আমরা ব্য’ক্তিগত কোনো পা’প করিনি! ব্যক্তিগত পা’প ছাড়াও যে চলচ্চিত্র অঙ্গ’নে শতশত সিনেমা নির্মাণ হয়ে থাকে আমি সেটাই প্রিয় দর্শ’কদের বোঝাতে চেয়েছি। তিনি আরো লিখেন, ভাইয়ারে ছবি নিয়ে শু’টিং থেকে শুরু করে প্রচার প্রচারণায় আমি যে অ’ক্লান্ত পরিশ্রম করেছি। এই প’রিশ্রমের ফলাফল হিসাবে চিত্রামহল সিনেমা হলে আমি যখন হাউজ’ফুল দর্শক দেখতে পাই, তখন সাংবাদিকদের সামনে আ’বেগাপ্লু’ত হয়ে ক’সম খেয়ে বলে ফেলেছি, এই ছবি করতে গিয়ে আমি ব্য’ক্তিগত কোনো পা’প করিনি।

 

সিনেমা পা’পমু’ক্ত, সিনেমা হা’লাল, এগুলো আমি কখনোই বো’ঝাতে চাইনি।তারপরও এইটুকু বলবো, আমি তো মানুষ আল্লাহ আপনি দয়া করে আমাকে মা’ফ করে দিন। আমার এই কথায় যদি কোনো ধ’র্মপ্রাণ মানুষ কোনো ধরনের ক’ষ্ট পেয়ে থাকেন তাহলে আমাকে আল্লাহর অ’স্তে মাফ করে দিবেন। প্রসঙ্গত, সিনেমাটির বিভিন্ন চরিত্রে আরও অভিনয় করেছেন এলিনা শাম্মী, শবনম পারভীন, পীরজাদা হারুন, বড়দা মিঠু, সীমান্ত আহমেদ, হেলেনা জাহাঙ্গীর, জারা প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.